1. admin@nagorikexpress.com : নাগরিক এক্সপ্রেস : Nagorik Express প্রশাসন
  2. allmohiminulkhan@gmail.com : Khan allmohiminulkhan : Khan allmohiminulkhan
  3. khalidsyful@gmail.com : syful Khalid : syful Khalid
  4. abukawsirahmed638@gmail.com : Abu Kawsar : Abu Kawsar
  5. abdullahyeasir@gmail.com : MASUD Alom : MASUD Alom
  6. mizanbd@gmail.com : Mizan Khan : Mizan Khan
  7. nayemk255@gmail.com : Nayem Nayem : Nayem Nayem
  8. dailydhakartime@gmail.com : Nayim Khan : Nayim Khan
  9. hasan145nazmul@gmail.com : Tarak : Tarak Sarkar
  10. rd278591@gmail.com : RA Rahul : RA Rahul
  11. cablew742@gmail.com : Sojal Mia : Sojal Mia
বৃহস্পতিবার, ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৪৯ অপরাহ্ন

ময়মনসিংহে মিথ্যা মামলা হয়রানি ভীতি সংবাদিকদের

  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ৮ নভেম্বর, ২০১৯
  • ২৪৭ সময় দেখা

ময়মনসিংহে মিথ্যা মামলা হয়রানি ভীতি সংবাদিকদের

ময়মনসিংহ প্রতিনিধিঃ

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে খাদ্য সররবাহে অনিয়ম দুর্নীতির সংবাদ প্রকাশ হওয়ায় সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজির মামলার আসামি হয়েছেন, দৈনিক ময়নসিংহ প্রতিদিন ও অপরাধ সংবাদের  সম্পাদক খায়রুল আলম রফিক ।

প্রভাবশালী ঠিকাদার হাশেম আলী বাদী হয়ে ২০১৮ সনে এ মামলা করেন । মামলায় অভিযোগ করা হয়, খায়রুল আলম রফিক হাসপাতালের ভেতর কুক হাউজ অফিস, ২০ ইঞ্চি টিভি, কাঠের চেয়ার ভাংচুর করে, ।

জেলার ত্রিশাল থেকে প্রকাশিত সাপ্তাহিক ত্রিশাল বার্তার সম্পাদক ও ত্রিশাল প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি শামীম আজাদ আনোয়ারের বিরুদ্ধে মিথ্যা চাঁদাবাজি মামলা করেছে  সরকারি কর্মকর্তা জেসমিন সুলতানা। এ দুই সাংবাদিকই নন । জেলায় এমন অনেক ভূক্তভোগী সাংবাদিক আছেন, যারা প্রশাসন ও রাজনৈতিক দলের প্রভাবশালীদের চাপে আছেন ।

উপরোক্ত ছাড়াও চাঁদাবাজি, জালিয়াতির অভিযোগ এনেও সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের হচ্ছে। বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশ করতে গিয়ে তারা মামলা, হামলা ও হয়রানির শিকার হচ্ছেন ।

সাংবাদিকতাকে বলা হয় মহান পেশা। আর এ ক্ষেত্রে পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে এমন মিথ্যা মামলা হামলা হয়রানির ঝুঁকি পর্যন্ত নিতে হচ্ছে সাংবাদিকদের। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েক সাংবাদিক বলেন, সরকার, প্রশাসন, রাজনৈতিক পক্ষ, প্রভাবশালী, মাদক কারবারিসহ নানান পক্ষ থেকে বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতায় বাধা আসছে।

সূত্রে জানা গেছে, ময়মনসিংহে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে ফৌজদারি মামলা করার প্রবণতা বেড়েছে । এক্ষেত্রে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন অর্থাৎ ৫৭ ধারায় মামলা এবং মামলায় জড়ানোর হুমকি আসছে সাংবাদিকদের। জেলার থানাগুলিতে স্থানীয় প্রশাসন, পুলিশ এবং প্রভাবশালী রাজনীতিকদের দুর্নীতির খবর প্রকাশ করে তাদের আক্রোশে পড়ছেন সাংবাদিক খায়রুল আলম রফিক, শামিম আজাদ আনোয়ারসহ ভূক্তভোগীরা । প্রশাসনের অনিয়ম নিয়ে কিছু লিখলেই মামলা করে দেবে এমন হুমকি আসছে। মানহানির মামলা না হলে আইসিটি মামলা । একথা শুনছেন তারা । প্রভাবশালীদের চাপের কারণে সাংবাদিকদের সুরক্ষা প্রশ্নবিদ্ধ । গতকাল গণমাধ্যমে তথ্যমন্ত্রী হাছান মাহমুদ বলেছেন, ‘ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন হচ্ছে বাংলাদেশের সব মানুষকে সুরক্ষা দেওয়ার জন্য। এখানে কিছু ধারার ব্যাপারে সাংবাদিকদের উদ্বেগ আছে। সেই উৎকণ্ঠা দূর করার জন্য কাজ করছি, যাতে কোনো ধারার অপপ্রয়োগ না হয়।

ময়মনসিংহ জেলা সদর, ত্রিশাল, মুক্তাগাছাসহ জেলার প্রায় সকল উপজেলাতেই সাংবাদিকদের ওপর কিছু প্রশাসনের কর্মকর্তা, প্রভাবশালী ও রাজনৈতিক দমন-পীড়নের ঘটনা কমবেশি ঘটেছে । সাংবাদিকরা মামলা বা হুমকি-হয়রানির শিকার হচ্ছেন । নিপীড়কের তালিকায় শীর্ষে আছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী,

প্রভাবশালী ব্যক্তি, জনপ্রতিনিধি, সন্ত্রাসী ও ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীরা। ভয়- চাপের এই নানামাত্রিক বাস্তবতার শিকার ময়মনসিংহের এই সাংবাদিকদের অবাধ চলাচলে প্রতিবন্ধকার সৃষ্টি হচ্ছে ।

মামলা ব্যয় নির্বাহ ও চিকিৎসা করতে গিয়ে আর্থিকভাবেও তারা ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছেন। এতে খর্ব বা সংকুচিত হচ্ছে বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতার পরিধি । এই ক্ষেত্রে সাধারণ স্বার্থান্বেষী ব্যক্তির পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ও করপোরেট অফিসগুলো সমানভাবে এগিয়ে রয়েছে। তাদের অভিযোগ, বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশের পরও মূলত সাংবাদিকদের পেশাগত দায়িত্ব পালনে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করতে প্রতিশোধপরায়ণ হয়ে আইনের এমন অপব্যবহার করছে স্বার্থন্বেষী মহল।  বাংলাদেশ অনলাইন সংবাদপত্র সম্পাদক পরিষদের সভাপতি খায়রুল আলম রফিক বলেন,

মামলা করার এই প্রবণতাকে গণতন্ত্র ও অবাধ তথ্যপ্রবাহের পথে প্রতিবন্ধক ।  আমরা ঝুঁকির মধ্যে কাজ করি। কিন্তু এসব ঝুঁকির ভেতরেও আমরা টিকে থাকি মানুষের কারণে। প্রোপাগান্ডা বা অপপ্রচার সব সময়ই ছিল। কিন্তু সবকিছুর ওপরেই সুসাংবাদিকতা। এটা আগেও ছিল, এখনো আছে, ভবিষ্যতেও থাকবে। প্রতিবন্ধকতার মাঝেও আমরা সুসাংবাদিকতার চর্চা চালিয়ে যেতে যথাসম্ভব চেষ্টা চালিয়ে যাবো ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই ধরনের আরো সংবাদ
© নাগরিক এক্সপ্রেস । সর্বসত্ব সংরক্ষিত। নাগরিক এক্সপ্রেস এর প্রকাশিত প্রচলিত কোনো সংবাদ তথ্য ছবি আলোকচিত্র রেখা চিত্র ভিডিও চিত্র অডিও কনটেস্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামত এর জন্য কর্তৃপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ণ লেখক এর
Theme Customized By Theme Park BD
error: Content is protected !!